বৃহস্পতিবার-৯ই এপ্রিল, ২০২০ ইং-২৬শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৩:৪২, English Version
অঘোষিত লকডাউন মধ্যে দিয়ে নশিপুর ঘোষ পাড়াতে ব্যক্তিগত উদ্যোগে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ বাংলাদেশ চ্যালেঞ্জ ক্যাম্পেইন উদ্বোধন করলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী পার্বতীপুর উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতির উদ্যোগে খাদ্য সহায়তা নীলফামারীর ডোমারে সর্দি-জ্বরে এক ব্যক্তির মৃত্যু, পুলিশ ছাড়া কেউ এলো না দাফনে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসীর মৃত্যু সৈয়দপুরে দেড়শ কর্মহীন পরিবারের সহায়তায় হাত বাড়ালো গোলামে মুস্তফা কমিটি অসহায়দের ঘরে ঘরে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা এ্যাপোলো

সিলেটে জঙ্গি আস্তানায় চূড়ান্ত অভিযান শুরু

প্রকাশ: শনিবার, ২৫ মার্চ, ২০১৭ , ৫:১২ পূর্বাহ্ণ , বিভাগ : সারাদেশ,সিলেট,
মুক্তিনিউজ24.কম ডেস্ক: সিলেট মহানগরের দক্ষিণ সুরমা থানার শিববাড়ি এলাকায় জঙ্গি আস্তানা আতিয়া মহলে ‘অপারেশন স্প্রিং রেইন’ নামের অভিযান শুরু করেছে সেনাবাহিনীর প্যারা-কমান্ডো টিমের সদস্যরা। তারা সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়ে বাড়ির ভেতরে প্রবেশ করেছেন। বাড়িটিকে ঘিরে রেখেছে পুলিশ, সোয়াত ও প্যারা-কমান্ডোর সদস্যরা। তবে কার নেতৃত্বে অভিযান চলছে তা এখনো জানা যায়নি। এবিনিউজ
এলাকার জনসাধারণ ও সংবাদকর্মীকে ঘটনাস্থল থেকে এক কিলোমিটার দূরে সরে যেতে বলা হয়েছে। এলাকার বিদ্যুৎ, পানি ও গ্যাস-সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়েছে।
ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি, পুলিশের সাঁজোয়া যান ও কয়েকটি অ্যাম্বুলেন্স রাখা হয়েছে। সিলেটে জঙ্গি আস্তানায় চূড়ান্ত অভিযান শুরু
সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার জেদান আল মুসা বলেন, অভিযান শুরু হয়েছে। প্যারা-কমান্ডো অভিযান চালাচ্ছে। অভিযান শুরুর আগে শিববাড়ি এলাকার গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, আতিয়া মহলের ভেতরে প্রবেশ করেছে ৫০-৬০ জন সদস্য। বাড়ির বাইরে অবস্থান নিয়েছেন প্যারা-কমান্ডো ও সোয়াত টিমের আরো এক থেকে দেড়শ’ সদস্য।
সিলেটের দক্ষিণ সুরমা থানাধীন শিববাড়ি এলাকায় ‘আতিয়া মহল’ ওই দুই বাড়ির মধ্যে পাঁচতলা ভবনটিতে ৩০টি ফ্ল্যাটে সমান সংখ্যক পরিবারের বসবাস। শুক্রবার সকাল ৮টার দিকে আতিয়া মহল বাড়ির ভেতর থেকে বাইরের দিকে গ্রেনেড ছোড়া হয় বলে জানায় স্থানীয়রা। এরপর পুলিশ  ওই বাসার আশপাশের সব বাড়ি খালি করে। কিন্তু ওই ভবনের নিচতলায় জঙ্গিরা অবস্থান করায় বাড়িটি খালি করা সম্ভব হয়নি। পরে জঙ্গি আস্তানায় অভিযান পরিচালনার জন্য বিকালে সোয়াট টিম ও রাত সাড়ে ৭টার দিকে সেনাবাহিনীর প্যারা-কমান্ডো বাহিনী ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। আর অভিযানে নেতৃত্ব দিতে রাত ৪টার দিকে সিলেটে ঘটনাস্থলে পৌঁছান সিটিটিসি ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম। সিলেটে জঙ্গি আস্তানায় চূড়ান্ত অভিযান শুরু
দুই সপ্তাহ আগে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের এক বাড়ি ঘিরে চালানো অভিযানের মতো সিলেটেও জেনারেটর বসিয়ে ঘটনাস্থল আলোকিত করে রাখা হয় সারা রাত। ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি এনে রাখাসহ অন্যান্য প্রস্তুতিও নিয়ে রাখতে দেখা যায়।
একজন সোয়াট সদস্য বলেন, বাসার ভেতরে জঙ্গিরা শক্তিশালী বোমা রেখেছে বলে তারা আশঙ্কা করছেন। এ কারণেই চূড়ান্ত অভিযানে যাওয়ার আগে সময় নেয়া হয়।
আপনার মতামত লিখুন

সারাদেশ,সিলেট বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ