সোমবার-৬ই এপ্রিল, ২০২০ ইং-২৩শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৮:৪৯, English Version
দেশের কোনো মানুষ না খেয়ে থাকবে না : হুইপ ইকবালুর রহিম চা, কফি বা গরম পানি খেয়ে কি করোনাভাইরাস দূর করা যায়? মুসল্লিদের ঘরে নামাজ পড়ার নির্দেশ গাইবান্ধায় হোম কোয়ারেন্টাইনে ১৬৩ বাড়ি ফিরে গেছে ৪ জন আক্রান্ত ৫ প্রধানমন্ত্রী যে খাদ্য ও নগদ অর্থ বরাদ্দ দিয়েছেন কেও না খেয়ে থাকবেন না..জেসী এমপি গাইবান্ধায় উপসর্গ নিয়ে যুবকের মৃত্যু ফুলবাড়ীতে কিশোরী অপহরণ আটক -১

ফুলবাড়ী পৌরসভার বিভিন্ন জায়গায় আবর্জনার স্তুপ

প্রকাশ: সোমবার, ২৩ মার্চ, ২০২০ , ৩:৩৩ অপরাহ্ণ , বিভাগ : রংপুর,সারাদেশ,

মোঃ আফজাল হোসেন, ফুলবাড়ী দিনাজপুর সংবাদদাতা :
ফুলবাড়ী পৌরসভার বিভিন্ন এলাকায় আবর্জনার স্তুপ। অপরিষ্কার অপরিচ্ছন্ন ফুলবাড়ী পৌরসভা। ফুলবাড়ী পৌরসভার নাগরিকরা পৌরসভার ট্যাক্স, ভ্যাট সঠিকভাবে প্রদান করলেও নাগরিক সুবিধা থেকে বঞ্চিত। ৩৭ বছর পার হয়ে গিয়ে প্রথম শ্রেণির পৌরসভায় উন্নীত হলেও ফুলবাড়ী পৌরবাসী নাগরিক সুবিধা পাচ্ছে না। নাগরিক সুবিধা না পেয়ে বাড়ছে ভ্যাট ট্যাক্স। ফুলবাড়ী পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে বিভিন্ন জায়গায় মাসের পর মাস আবর্জনায় ভরে দূর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করার বিষয়ে পৌরসভার কোন উদ্যোগ দেখা যাচ্ছে না। মাঝে মধ্যে ঝটিকা অভিযান চালানো হয়। এর পর আবার বন্ধ হয়ে যায় সকল প্রকার কার্যক্রম।
ইতিমধ্যে সারা বিশ্বে  অচল হয়ে পড়েছে। মানুষ জীবন বাঁচাতে ঘর থেকে বের হচ্ছে না। সরকারিভাবে স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা সহ বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। ফুলবাড়ী পৌরসভায় প্রায় লক্ষাধিক  নাভেল করোনা ভাইরাস-১৯ ছড়িয়ে পড়ায় বাংলাদেশে এর প্রভাব পড়েছে। জীবনযাত্রা প্রায় লাকজনের বসবাস। ফুলবাড়ী পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডের বাসা-বাড়ির আর্বজনা গুলি ফেলানোর নির্দিষ্ট কোন ডাষ্টবিন না থাকায় বিভিন্ন জায়গায় গড়ে উঠেছে আবর্জনার স্তুপ। এর ফলে শহর আপরিষ্কার অপরিচ্ছন্ন থাকছে। এতে পরিবেশের মারাত্বক ক্ষতি হচ্ছে। মশা, মাছি এবং জীবানু মুক্ত করনের বিষয়ে কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করছেনা ফুলবাড়ী পৌরসভা কর্তৃপক্ষ । বিভিন্ন ড্রেনে ও আবর্জনার স্তুপের কারণে মশা-মাছি বৃদ্ধি পাচ্ছে। ফলে সৃষ্টি হতে পারে বিভিন্ন রোগবালাই। শহরের রাস্তাগুলিতে নেই কোন বিদ্যুৎ বাল্প, অন্ধকারে থাকছে ফুলবাড়ী পৌরসভা। লোক দেখানো ফুলবাড়ী পৌরসভার উর্বশী সিনেমা হল থেকে পশ্চিম দিকে ব্রীজ পর্যন্ত যে সকল বাল্প লাগানো হয়েছে তার মধ্যে বেশ কিছু বাল্প নষ্ট হয়ে গেছে । ঢাকামোড় থেকে পশ্চিম দিকে পৌরসভার শেষ সীমানা পর্যন্ত প্রায় বৈদ্যুতিক বাল্পগুলো নষ্ট হয়ে পড়ে আছে, দেখার কেউ নেই । ফুলবাড়ী পৌরসভা এখন বেহাল অবস্থা। এই মহূর্তে শহরকে পরিষ্কার পরিচ্ছিন্ন রাখা অতিজরুরী কিন্তু কে দেখবে এই শহরকে? পৌর বাসী শুধু বছরের পর বছর ট্র্র্যাক্স, ভ্যাট দিয়ে যাবে?

আপনার মতামত লিখুন

রংপুর,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ