সোমবার-৩০শে মার্চ, ২০২০ ইং-১৬ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৩:২৯, English Version
উমাদিনী ত্রিপুরার মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক ডোমার পৌর শহরে চলছে জীবাণু নাশক ছিটানো কার্যক্রম। লালপুরে দুস্থদের মাঝে নিজ উদ্যোগে খাবার সামগ্রী বিতরণ পার্বতীপুরে করোনা ঠেকাতে আদা, লং, কালিজিরার চা খাওয়ার গুজব! চাঁপাইনবাবগঞ্জে খেটে খাওয়া গরীব দুঃখি মানুষের মাঝে চাল বিতরণ শুরু ‘করোনা চিকিৎসায় ২৫০ ভেন্টিলেটর প্রস্তুত’ সংবাদপত্র সংক্রান্ত সকল ধরনের কাজ পরিচালনায় কোনো বাধা নেই

শ্রমিক ইউনিয়নের নির্বাচন পলাশবাড়ীতে সোবাহান সভাপতি- বিপ্লব সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত

প্রকাশ: রবিবার, ১ মার্চ, ২০২০ , ১১:২৮ পূর্বাহ্ণ , বিভাগ : রংপুর,সারাদেশ,

 

গাইবান্ধা জেলা সংবাদদাতা: গাইবান্ধা জেলা বাস মিনিবাস কোচ ও মাইক্রোবাস পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন রেজি নং ৪৯৪ এর ত্রি বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। কঠোর পুলিশী নিরাপত্তার মধ্যদিয়ে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। ২৯ ফেব্রয়ারী শনিবার এদিন সকাল ৮ টা থেকে বিরতিহীন ভাবে বিকেল ৪ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহন করা হয়।

দিনব্যাপী এ ভোট গ্রহনে ১২ টি পদে ৩৭ জন প্রার্থীদের পদে সংগঠনের ১৩২৪ জন বৈধ ভোটারের মধ্যে ১১৭০ জন ভোটার ভোট প্রদান করেন। এ নির্বাচন ধর্মীয় সম্পাদক হাফেজ নুরুল ইসলাম বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় আগেই নির্বাচিত হয়। ১৩ টি পদে একটি বিনাপ্রতিদ্বন্দিতায় ও পরে নির্বাচনে ১২ টি পদে ভোটে ১৪ জন প্রার্থী নির্বাচিত হন।

সভাপতি পদে নির্বাচিত হন সংগঠনের সাবেক সভাপতি আব্দুস সোবাহান বিচ্চু তিনি ভোট পেয়ছেন ৫৮৬ টি । তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী আবু তাহের বটগাছ তিনি পেয়েছেন ৩৯৫ ভোট অপর প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ সাবু পেয়েছেন ১৭৪ ভোট। এ পদে নষ্ট ও বাতিল ভোট ১৭ টি।

সাধারণ সম্পাদক পদে মোমবাতি মার্কা নিয়ে নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক গোলাম সরোয়ার প্রধান বিপ্লব । তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী তৌহিদুল ইসলাম পেয়েছেন ৫০০ ভোট। তার মার্কা ছিলো ছাতা। এ পদে নষ্ট ও বাতিল ভোট ৪ টি।

সহ- সভাপতি পদে বাস মার্কা নিয়ে ৫০৯ ভোট নির্বাচিত হয়েছেন আজাহার আলী। তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী কুড়াল মার্কার প্রার্থী আবুল হোসেন ৫০১ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। এ পদে ভোট দেননি ও নষ্ট ভোট ১৬০ টি।

সহ সাধারণ সম্পাদক পদে সেলাই রেঞ্জ মার্কায় ৪২১ ভোট নির্বাচিত হয়েছেন সাজু মিয়া । তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী আব্দুল মতিন আম মার্কায় ভোট পেয়েছেন ২৯১ টি,অপর প্রাথী মজনু মিয়া গরুর গাড়ী মার্কায় ২৩৪ ভোট , এ পদে আরেক প্রার্থী আনোয়ারুল ইসলাম হ্যারিকেন মার্কা পেয়েছেন ১২১ ভোট। এ পদে নষ্ট ও ভোট দেননি ১০৩ টি।
সাংগঠনিক সম্পাদক পদে হাতি মার্কায় ৪১৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন ফিরোজ কবির । তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী হিসাবে স্টেয়ারিং মার্কা নিয়ে ফরিদুল ইসলাম আকন্দ পেয়েছেন ৩৫৫ ভোট। অপর প্রার্থী আব্দুল কাদের প্রধান বাঘ মার্কায় ভোট পেয়েছেন ২৬১ টি। এ পদে নষ্ট ভোট ও দেননি ১৪০ টি।

কার্যকরি সভাপতি পদে হরিণ মার্কা নিয়ে ৫০২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন খাজা মন্ডল।তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী রফিকুল ইসলাম ঘড়ি মার্কা নিয়ে ভোট পেয়েছেন ৪৯৪ টি। এ পদে নষ্ট ও ভোট দেননি ১৭৪ টি।

অর্থ সম্পাদক পদে হাতুরি মার্কায় ৫৫৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন রঞ্জু মিয়া। তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী আব্দুল বারী মিয়া মোরগ মার্কা নিয়ে ভোট পেয়েছেন ৪৬৭ টি। তৃতীয় হয়েছেন আব্দুল মমিন মিয়া ম্যানেজার তাজমহল মার্কায় ভোট পেয়েছেন ৫৩ টি। এ পদে নষ্ট ও ভোট দেননি ১৪৬ টি।

সড়ক সম্পাদক ২ টি পদে মাছ প্রতিক ৭৯৫ ভোট পেয়ে প্রথম নির্বাচিত হয়েছেন একাধিকবার নির্বাচিত শহিদুল ইসলাম সরকার। ৫৪১ ভোট পেয়ে দ্বিতীয় নির্বাচিত হয়েছেন সাদেকুজ্জামান মিন্টু। তাদের প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী হিসাবে মধু মিয়া ফুটবল মার্কায় পেয়েছেন ৪২৭ ভোট।

দপ্তর সম্পাদক পদে কলস মার্কায় ৫৫৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন আরিফুল ইসলাম। তার প্রতিদ্বন্দিপ্রাথী হিসাবে দোয়াত কলম মার্কার প্রার্থী সায়েদ আলী পেয়েছেন ৪২১ ভোট। এ পদে নষ্ট ও ভোট দেননি ১৯২ টি।

প্রচার সম্পাদক পদে চেয়ার মার্কায় ৪২০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন রাজা মিয়া । তার প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী হিসাবে নওশা মিয়া ডাব মার্কায় ভোট পেয়েছেন ৩৩৬ টি। এ পদে ৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দিতা করেছেন অপর দুই প্রার্থী আশরাফুল আলম মাইক মার্কায় ভোট পেয়েছেন ১৮৫ টি। সরোয়ার কবির মজনু টিয়া পাখি মার্কায় ভোট পেয়েছেন ১১০ টি। এ পদে নষ্ট ও ভোট দেননি ১১৯ টি।

২ টি সদস্য পদে লুৎফর আলী প্লাস মার্কায় ৩৮৬ ভোট পেয়ে প্রথম হয়েছেন। জসিম উদ্দিন ঘোড়া মার্কা নিয়ে ৩৪৮ ভোট পেয়ে দ্বিতীয় সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। এ পদে প্রতিদ্বন্দিতাকারী আবুল কালাম সরকার মই মার্কায় পেয়েছেন ২৮২ ভোট, মিনু মিয়া টেম্পু মার্কায় পেয়েছেন ২৪৯ ভোট,সেলাই মেশিন মার্কায় শাহানুর পেয়েছেন ২৩৩ ভোট,তলোয়ার মার্কায় সামাদ মিয়া পেয়েছেন ২৩৩ ভোট।
ভোট গ্রহন শেষে প্রিজাইডিং অফিসার হাসানুজ্জামান স্বাক্ষরিত ফলাফল ঘোষনা করেন রিটানিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মেজবাউল হোসেন। এসময় নির্বাহী ম্যাজিস্টেট ও সহকারি কমিশনার ভুমি সালমা থাতুন জেলা পুলিশের সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার আসাদুজ্জামান, থানা অফিসার ইনচার্জ মাসুদুর রহমান,ওসি তদন্ত মতিউর রহমান সহ থানা পুলিশের অন্যান্য কর্মকর্তারা ও নির্বাচন পরিচালনা কমিটি।

আপনার মতামত লিখুন

রংপুর,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ