সোমবার-৬ই এপ্রিল, ২০২০ ইং-২৩শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: বিকাল ৫:৫৩, English Version
দেশের কোনো মানুষ না খেয়ে থাকবে না : হুইপ ইকবালুর রহিম চা, কফি বা গরম পানি খেয়ে কি করোনাভাইরাস দূর করা যায়? মুসল্লিদের ঘরে নামাজ পড়ার নির্দেশ গাইবান্ধায় হোম কোয়ারেন্টাইনে ১৬৩ বাড়ি ফিরে গেছে ৪ জন আক্রান্ত ৫ প্রধানমন্ত্রী যে খাদ্য ও নগদ অর্থ বরাদ্দ দিয়েছেন কেও না খেয়ে থাকবেন না..জেসী এমপি গাইবান্ধায় উপসর্গ নিয়ে যুবকের মৃত্যু ফুলবাড়ীতে কিশোরী অপহরণ আটক -১

মুক্তিযোদ্ধাদের মাসিক ভাতা বাড়াবে সরকার

প্রকাশ: মঙ্গলবার, ১১ জুন, ২০১৯ , ৪:২২ অপরাহ্ণ , বিভাগ : মুক্তিযুদ্ধ,

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: সরকার আগামী বাজেটে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মাসিক ভাতা ১০ হাজার থেকে বাড়িয়ে ১২ হাজার টাকা করার প্রস্তাব করবে। আগামী বৃহস্পতিবার সংসদে এই প্রস্তাব আনা হবে। তবে নতুন অর্থ বছরে তাঁদের অন্যান্য ভাতা অপরিবর্তিত থাকবে।

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা আজ মঙ্গলবার জানান, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয় চলতি অর্থ বছরে এ লক্ষ্যে বরাদ্দকৃত ৩,৩০৫ কোটি টাকার স্থলে আসন্ন বাজেটে ৩,৪৮৫ টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব করবে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের সরকার তাঁর প্রতিশ্রুতির অংশ হিসেবে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান ও শ্রদ্ধার নিদর্শন স্বরূপ তাঁদের এই ভাতা চালু করেন।

মন্ত্রণালয় প্রদত্ত তথ্যে আরো জানা যায়, ১ জুলাই থেকে শুরু হওয়া নতুন অর্থ বছরে মুক্তিযোদ্ধাদের অন্যান্য উৎসব ভাতা অপরিবর্তিত রাখা হবে।

সরকার সম্প্রতি ২ লাখ বীর মুক্তিযোদ্ধার ১৯৭১ সালে তাঁদের মহান অবদানের জন্য প্রত্যেককে মাসে ১০ হাজার টাকা ভাতা প্রদান করছে। এ ছাড়াও বিবিধ সুবিধা হিসেবে মুক্তিযোদ্ধাদের বিজয় দিবস, ঈদ ও বাংলা নববর্ষে বৈশাখী ভাতা ও মেট্রোপলিটন এলাকায় বিনামূল্যে প্রতিদিন ১২৫ লিটার পানি ব্যবহারের সুবিধা দিচ্ছে।

আগামী জাতীয় বাজেটে প্রত্যেক মুক্তিযোদ্ধাকে মাসিক সম্মাননা ১০ হাজার টাকার স্থলে ১২ হাজার টাকা করা হবে। তবে প্রতি ঈদে ১০ হাজার এবং বৈশাখী বোনাস হিসেবে ২ হাজার টাকা প্রদান করা হবে। এ ছাড়াও সরকার আহত মুক্তিযোদ্ধাদের মেডিক্যাল ভাতা এবং শহীদ ও পঙ্গু মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে রেশন প্রদান করছে।

আপনার মতামত লিখুন

মুক্তিযুদ্ধ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ