সোমবার-৬ই এপ্রিল, ২০২০ ইং-২৩শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৪:৪৯, English Version
বেসরকারি হাসপাতালগুলোকে এই দুর্যোগে জনগণের পাশে থাকার আহ্বান তথ্যমন্ত্রীর মাস্ক ছাড়া কেউই এ সময় বাইরে বের হবেন না                                          –স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঠাকুরগাঁওয়ে কর্মহীন হোটেল শ্রমিকদের পাশে আর.ডি.এস এর পরিচালক আলমগীর হোসেন দেশে করোনায় আরও ১ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১৮ ছুটি বাড়ল ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত অঘোষিত লক ডাউন চলছে তারি মধ্যে দিয়ে বাড়ি বাড়ি খাদ্য পৌছিয়ে দিলেন এমপি জেসী বাংলাদেশে যেসব ল্যাবে করোনা ভাইরাস শনাক্তকরণে কাজ চালু রয়েছে ও মোবাইল নম্বরসহ

বঞ্চনা থেকে মুক্তির নির্দেশনা ছিল ৭ই মার্চের ভাষণে

প্রকাশ: শনিবার, ৯ মার্চ, ২০১৯ , ৫:৩৯ পূর্বাহ্ণ , বিভাগ : জাতীয়,সারাদেশ,

মুক্তিনিউজ24.কম ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, জাতিকে ধাপে ধাপে স্বাধীনতার মন্ত্রে উজ্জীবিত করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। বঞ্চনা থেকে মুক্তির নির্দেশনা ছিল ৭ই মার্চের ভাষণে। তাঁর নির্দেশনা বাঙালি জাতি অক্ষরে অক্ষরে পালন করেছে।

গতকাল শুক্রবার ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ভাষণ : রাজনীতির কবির অমর কবিতা’ শীর্ষক সেমিনারে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেমোরিয়াল ট্রাস্ট রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনে এ সেমিনারের আয়োজন করে।

ট্রাস্টের সভাপতি শেখ হাসিনা বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর ভাষণ নিয়ে অনেকে অনেক রকম ব্যাখ্যা দেন। তখনকার ছাত্রনেতা এখন যাঁরা জীবিত আছেন, আমি আজকেও একজনের ইন্টারভিউ দেখছিলাম। সেখানে অনেকে নানাভাবে ব্যাখ্যা দিয়ে দিচ্ছেন। আসলে এই ব্যাখ্যাগুলো শুনলে হাসি পায় যে, এরা আসলে কতটা অর্বাচীনের মতো কথা বলে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এই ভাষণে দেখবেন, এখানে কোনো পয়েন্ট নেই, কোনো কাগজ নেই। কারণ তিনি তো সংগ্রাম করে গেছেন সেই ১৯৪৮ সাল থেকে। তখন থেকেই তিনি বাঙালি জাতির মুক্তির জন্য সংগ্রাম করে গেছেন। স্বাভাবিকভাবেই তিনি জানেন মুক্তির পথটি কোথায়, কিভাবে আসবে।’

বঙ্গবন্ধুকন্যা আরো বলেন, “ভাষণে যাওয়ার আগে অনেকেই দিন-রাত পরিশ্রম করেছেন, অনেকে অনেক পয়েন্ট তৈরি করেছেন। অনেকে বলেছেন এটা বলতে হবে, ওটা বলতে হবে, এভাবে বলতে হবে, সেভাবে বলতে হবে। নানা ধরনের কথার মধ্যে আমরা জর্জরিত ছিলাম। অনেক কাগজ আমাদের বাসায় জমা হয়েছিল। শেষ কথা বলেছিলেন আমার মা। যে কথাটি আমি সব সময় বলি। আমার মা একটা কথাই বলেছিলেন, ‘সারাটা জীবন তুমি সংগ্রাম করেছ, তুমি জানো বাংলাদেশের মানুষ কী চায় এবং তার জন্য কী করতে হবে। তোমার থেকে ভালো আর কেউ জানে না। কাজেই তোমার মনে যে কথাটা আসবে, তুমি শুধু সেই কথাই বলবে আর কোনো কথা না।’”সূত্র: কালের কন্ঠ

আপনার মতামত লিখুন

জাতীয়,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ