বুধবার-১৯শে জুন, ২০১৯ ইং-৫ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: সকাল ৭:০৭
সার্কাসের হাতি দিয়ে চাঁদাবাজি, হাতি-মাহুত আটক, জরিমানা বাজেট বইতে উঠে এসেছে মনিকার এখন নিজের থাকার একটা আশ্রয় হয়েছে এটাই শান্তি গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে চলছে ভোট আর দুই মামলায় জামিন হলেই খালেদা জিয়া মুক্তি পাবেন : মওদুদ মাশরাফিদের ফের অভিনন্দন প্রধানমন্ত্রীর, সাকিব-লিটনের প্রশংসা সোনার দাম কমছে নওগাঁয় ৯৩৩ কোটি টাকার আম উৎপাদন

নতুন উড়োজাহাজে ঈদ ফ্লাইট ইউএস-বাংলার

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: আসন্ন ঈদ উপলক্ষে ঘরমুখো মানুষের আরামদায়ক ভ্রমণ নিশ্চিত করতে সম্পূর্ণ নতুন এয়ারক্রাফট দিয়ে ফ্লাইট পরিচালনা করছে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস। এ জন্য সম্প্রতি বেসরকারি এয়ারলাইনসটির বহরে যুক্ত হয়েছে দুটি নেক্সট জেনারেশন এয়ারক্রাফট এটিআর-৭২-৬০০। এটিআর সিরিজের এই মডেলের এয়ারক্রাফটিই সর্বাধুনিক প্রযুক্তিতে সমৃদ্ধ যা দিয়ে তারা ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম, সিলেট, যশোর, কক্সবাজার, সৈয়দপুর, রাজশাহী ও বরিশাল রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করছে।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের কর্মকর্তারা জানান, বাংলাদেশের এভিয়েশনের ইতিহাসে বেসরকারি এয়ারলাইনসের মধ্যে ইউএস-বাংলাই সর্বপ্রথম ব্র্যান্ড নিউ এয়ারক্রাফট দিয়ে অভ্যন্তরীণ গন্তব্যে ফ্লাইট পরিচালনা করছে। বর্তমানে এই মডেলের অত্যাধুনিক এয়ারক্রাফট এয়ার ইন্ডিয়া, ইন্ডিগো, মালয়েশিয়ান এয়ারলাইনস, মালিন্দো এয়ার, লায়ন এয়ার ব্যবহার করে থাকে।

জানতে চাইলে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন গতকাল কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘দেশে আমরাই প্রথম বিশ্বের সর্বাধুনিক এটিআর-৭২-৬০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে অভ্যন্তরীণ রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করছি। জ্বালানিসাশ্রয়ী হিসেবে পরিচিত এটি বিশ্বের বিভিন্ন নামকরা এয়ারলাইনসগুলোর বহরে নির্ভরতার সঙ্গে ব্যবহৃত হচ্ছে। আমরাও আমাদের গ্রাহকদের ব্র্যান্ড নিউ এয়ারক্রাফটে ভ্রমণের সুবিধা দিতে চাই।’ আগামী জুনের মধ্যে আরো দুটি এটিআর-৭২-৬০০ উড়োজাহাজ ইউএস-বাংলার বহরে যুক্ত হবে বলে জানান তিনি। ২০১৪ সালের ১৭ জুলাই দ্রুতগতিসম্পন্ন দুটি ড্যাশ ৮-কিউ ৪০০ উড়োজাহাজ দিয়ে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস ঢাকা থেকে যশোরে উদ্বোধনী ফ্লাইট পরিচালনার মাধ্যমে যাত্রা শুরু করে। ঢাকা থেকে দেশের সাতটি অভ্যন্তরীণ গন্তব্যে ইউএস-বাংলাই সর্বপ্রথম বেশি ফ্লাইট পরিচালনা শুরু করেছে।

ইউএস-বাংলার ব্যবস্থাপনা পরিচালক আরো জানান, ইউএস-বাংলার বহরে থাকা বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এবং ড্যাশ ৮-কিউ ৪০০ এয়ারক্রাফটের পাশাপাশি এটিআর ৭২-৬০০ ব্র্যান্ড নিউ মডেলের এয়ারক্রাফট যুক্ত হওয়ায় বর্তমানে ইউএস-বাংলাই দেশের বেসরকারি এয়ারলাইনসের মধ্যে সর্ববৃহৎ এয়ারলাইনস। বর্তমানে ইউএস-বাংলার বিমানবহরে চারটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০, তিনটি ড্যাশ ৮-কিউ ৪০০ ও দুইটি এটিআর ৭২-৬০০ মডেলের এয়ারক্রাফট চালু আছে।

ইউএস-বাংলা আন্তর্জাতিক রুটে ঢাকা থেকে কলকাতা, চেন্নাই, সিঙ্গাপুর, কুয়ালালামপুর, ব্যাংকক, গুয়ানজু, মাস্কাট ও দোহায় নিয়মিত ফ্লাইট পরিচালনা করছে। সম্প্রতি এয়ারলাইনস সেফটি রেটিংস সাইটে স্থান করে নিয়েছে ইউএস-বাংলা। আন্তর্জাতিক এয়ারলাইনসগুলোর সেফটির বিষয় নিয়ে এই সাইট নিয়মিত তালিকা প্রকাশ করে থাকে। এই সাইটটি ফোর্বস ও সিএনএন কর্তৃক স্বীকৃত।’সূত্র: কালের কন্ঠ

আপনার মতামত লিখুন

অর্থনীতি,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ