রবিবার-২৬শে মে, ২০১৯ ইং-১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: সকাল ৬:৫০
আধুনিক হবে পার্বতীপুর রেল জংশন-রেল পথ মন্ত্রী সারা দেশেই সড়ক, রেল, নৌ ও বিমানবন্দর নির্মাণের কাজ চলছে : প্রধানমন্ত্রী গাইবান্ধা কারাগারে আসামি নিখোঁজ-উদ্ধারের ঘটনায় তদন্তে কমিটি আন্তনগর ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ ট্রেন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী দ্বিতীয় মেঘনা ও দ্বিতীয় গোমতী সেতু উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী বসুন্ধরায় বাইতুল জান্নাত জামে মসজিদ উদ্বোধন চার সমুদ্রবন্দরে ৩, নদীবন্দরে ২ নম্বর সংকেত

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নবীগঞ্জ-বাহুবল আসনে গণফোরামের প্রার্থীতা নিয়ে আলোচনায় রেজা কিবরিয়া

আজিজুল ইসলাম সজীব,হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নবীগঞ্জ-বাহুবল আসনে গণফোরামের প্রার্থী হচ্ছেন প্রয়াত সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এ.এমএস কিবরিয়া তনয় ড. রেজা কিবরিয়া। নির্ভরযোগ্য একটি বিশ্বস্থ সূত্র এমন তথ্য নিশ্চিত করেছে। আজ শনিবার এ বিষয়ে ঘোষণা আসতে পারে বলে সূত্রটি নিশ্চিত করেছে।
সাম্প্রতিক সময় সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেইসবুকের পাতা জুড়ে ঐক্যফ্র্রন্টের প্রার্থী হচ্ছেন শাহ এএমএস কিবরিয়ার পুত্র এমন তথ্য নিজেদের টাইনলাইনে লিখে পোস্ট করেন কয়েক শতাধিক লোক। যদিও নবীগঞ্জের রাজনৈতিক অঙ্গনে এ খবর গুজব হিসেবেই অনেকেই মনে করেন।
প্রাপ্ত সূত্র থেকে জানা গেছে, ড. রেজা কিবরিয়া জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেনের গণফোরামের মনোনয়ন ক্রয় করবেন এবং হবিগঞ্জ-১-(নবীগঞ্জ-বাহুবল) আসনে ঐক্যফ্রন্টের মনোনয়ন চাইবেন। তবে এব্যাপারে অর্থনীতিবিদ ড. রেজা কিবরিয়ার কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।
ড. রেজা কিবরিয়ার অর্থনীতি ব্যবস্থাপনায় এবং আর্থিক নীতিতে ২৫ বছরেরও বেশি অভিজ্ঞতা রয়েছে।
তিনি অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএ (ফার্স্ট ক্লাস অনার্স), কুইন্স ইউনিভার্সিটি (কানাডা) থেকে এমএ এবং অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের এমফিল (অর্থনীতি) এবং ডিফিল (অর্থনীতি) থেকে বিএ (ফার্স্ট ক্লাস অনার্স) লাভ করেন। ওয়াশিংটনের ডিসি (১৯৮৪-৯৩) এ আইএমএফ-এ আইএমএফ-তে অর্থনীতিবিদ হিসেবে তাঁর কর্মজীবন শুরু করেন এবং তারপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষাদান এবং বিশ্বব্যাংক, জাতিসংঘ এবং এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের গবেষণায় পরিণত হন। তিনি লিড অ্যাডভাইজার এবং বাংলাদেশের প্রশাসনে বিশ্বব্যাংকের রিপোর্টের জন্য সমন্বয়কারী লেখক ছিলেন। আইএমএফ ছেড়ে যাওয়ার পর তিনি বৃহত্তর অর্থনৈতিক কাঠামো এবং নীতি সমন্বয়ের দায়িত্বসহ পাপুয়া নিউ গিনির ট্রেজারি বিভাগের ম্যাক্রোইকোনমিক উপদেষ্টা হিসেবে কাজ করেছেন। তিনি ২০০০-২০০৮ সাল পর্যন্ত পিডিপি অস্ট্রেলিয়া এর প্রিন্সিপাল ইকোনোমিস্ট ছিলেন, প্রযুক্তিগত সহায়তার দলগুলি এবং পরিচালনা প্রকল্পগুলির নেতৃত্ব দেন। সাম্প্রতিক বছরগুলিতে তিনি ভারত (কেরালা-সাপোর্টিং ফিস্ক্যাল রিফর্মস), চীন (অর্থ মন্ত্রণালয়ের জন্য প্রযুক্তিগত সহায়তা প্রোগ্রাম ডিজাইন এবং রাষ্ট্রায়াত্ত কর্তৃপক্ষের করণীয়), সংযুক্ত আরব আমিরাত (প্রোগ্রাম বাজেট), কুয়েত (বাজেট সংস্কার), তানজানিয়া (জাতীয় কর্মসংস্থান সৃষ্টি প্রোগ্রাম), ইন্দোনেশিয়া (স্থানীয় সরকার আর্থিক) এবং সম্প্রতি, বাংলাদেশ (এসপিইএমপি, অর্থ মন্ত্রণালয়)। তিনি এপ্রিল ২০০৯ থেকে ২০১১ সালের জানুযারি পর্যন্ত দার এস সালামে ম্যাক্রো ফিশাল অ্যাডভাইসার আইএমএফ ইস্ট আফ্রিকা রিজিওনাল টেকনিকাল সহায়তা কেন্দ্র, ম্যাক্রো আর্থিক সমস্যাগুলিতে ইথিওপিয়া, ইরিত্রিয়া, কেনিয়া, মালাউই, রুয়ান্ডা, তানজানিয়া এবং উগান্ডার সরকারকে পরামর্শ দিয়েছিলেন। তিনি অস্ট্রেলিয়ার ব্রিসবেনের গ্রিফিথ বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল কেন্দ্রের নীতিশাস্ত্র, আইন, বিচার ও গভর্নেন্সের অ্যাডজুট্ট প্রফেসর ছিলেন।
বর্তমানে বাংলাদেশে একটি বাজেট ব্যবস্থাপনার সংস্কার প্রকল্পের জন্য টিম লিডার। এছাড়াও বিশ্বব্যাপী প্রকল্পে পিডিপি পরিচালন পরামর্শ।

আপনার মতামত লিখুন

সারাদেশ,সিলেট বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ