শনিবার,২৫শে মার্চ, ২০১৭ ইং,১১ই চৈত্র, ১৪২৩ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৩:৫৭
আজ সাকিবের শুভ জন্মদিন ‘গণহত্যার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি আদায়ে সর্বাত্মক উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে’ তিস্তা চুক্তি এবার না হলেও কিছুদিন পরে হবে: কাদের কানাডার পার্লামেন্টে ইসলামোফোবিয়া বিরোধী প্রস্তাব পাস ভালুকায় ট্রাক উল্টে একই পরিবারের ৫জন সহ নিহত ১০ চকরিয়ায় বাস-ম্যাজিক গাড়ি মুখোমুখি সংঘর্ষে চালক নিহত, আহত-৬ মানিকগঞ্জে বিশ্ব যক্ষ্মা দিবস

ফরিদপুরে ১ ব্যক্তিকে জবাই করে হত্যা।আটক স্ত্রী,ছেলে, মেয়ে।

downloadফরিদপুর প্রতিনিধিঃ ফরিদপুর শহরের উত্তর আলিপুর এলাকায় আবুল বাসার নামের ৬০ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে জবাই করে হত্যা করা হয়েছে। রবিবার রাত ৮টার দিকে এ হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটে। নিহত ব্যক্তি এক জন হাফেজ। সে সালথার গোট্টি ইউনিয়নের শাহ্ মকদম মাজার মসজিদের ইমাম ছিলেন। ছাড়াও কৃষিকাজ কবিরাজী ব্যবসার সাথে জড়িত ছিল। নিহত হাফেজ মোঃ আবুল বাসার ফকিরের দুই স্ত্রী । প্রথম স্ত্রীর ৬ মেয়ে এবং এক ছেলে। দ্বিতীয় স্ত্রীর এক সন্তান রয়েছে। হাফেজ আবুল বাসার প্রথম স্ত্রী এবং সন্তানদের নিয়ে বর্তমানে ফরিদপুর শহরের আলীপুর এলাকায় থাকতেন।দ্বিতীয় স্ত্রী থাকেন নগরকান্দা।
স্থানীয় এলাকাবাসী জানায়, রবিবার রাত ৮টার দিকে তার স্ত্রী সন্তানরা বাড়ীর বাহিরে এসে চিৎকার করে জানাতে থাকে দুবৃত্তরা ঘরে ঢুকে আবুল বাসারকে হত্যা করেছে। স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ঘরে ঢুকে আবুল বাসার ফকিরকে মৃত অবস্থায় শোবার ঘরের বিছানা থেকে উদ্ধার করে। তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে জবাই করে এবং মাথায় আঘাত করে হত্যা করা হয়েছে। রাতেই পুলিশ লাশটি থানায় নিয়ে আসে।থানা পুলিশ আবুল বাসারের প্রথম স্ত্রী সাহিদা বেগম, এক মেয়ে নিলুফা(২৫) এবং ছেলে নাহিম(১৬) কে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
এ ঘটনায় নিহতের ছোট ভাই মোঃ লোকমান ফকির বাদী হয়ে নিহতের প্রথম স্ত্রী এবং তার ছেলে মেয়ে সহ ৭/৮ জনকে আসামী করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। থানা পুলিশ সোমবার বেলা ১২ টার দিকে লাশের ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে।
পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্ত্রী সাহিদা বেগম হত্যার সাথে তাদের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করছে এবং হত্যা কান্ডে ব্যবহৃত কিছু আলামতও পুলিশ জব্দ করলেও ফরিদপুর থানার ওসি মোঃ নাজিমুদ্দিন আহমেদ বলেন, আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ জলছে।তদন্তের সার্থে এ অবস্থায় কিছু বলা যাচ্ছেনা।

আপনার মতামত লিখুন

বরিশাল,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ