শনিবার-২৩শে মার্চ, ২০১৯ ইং-৯ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ১২:০৪
আজ আমাকে শাকিব খান বানিয়েছে চলচ্চিত্রই বেড়াতে গিয়ে আর ফেরা হলো না সালামের শনিবার ভিপি হিসেবে দায়িত্ব নিচ্ছেন নুর হিলিতে গরুমোটাতাজাকরন ট্যাবলেটসহ বিভিন্ন প্রসাধনী সামগ্রী উদ্ধার করেছে বিজিবি চলতি বছরে চালু হবে কড়িডোর এক্সপ্রেস ও পুনরায় চালু হবে বাংলাদেশ-ভারত রেল যোগাযোগ –রেলপথ মন্ত্রী নুরুল ইসলাম ডোমারে গোমনাতীতে ৩দিন ব্যাপী তাফসিরুল কোরআন মাহফিল সমাপ্ত। সৈয়দপুরে গরীব চিকিৎসা সেবা সংস্থার উদ্যোগে ১ হাজার রোগীর ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্ঠিত

স্ট্রেচ মার্ক দূর করতে কার্যকর ৪ উপায়

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: যদিও স্ট্রেস মার্কের দাগ হালকা করার জন্য কসমেটিক চিকিৎসা আছে, তবে বেশিরভাগ মানুষই প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করতে চান। কিন্তু কোনটি বেশি কার্যকর তা জানা প্রয়োজন। স্ট্রেস মার্ক দূর করার কার্যকর ৪টি উপাদানের কথা জেনে নিন।

কোকোয়া বাটার : সাধারণত বিশেষ পণ্য প্রস্তুতের জন্য কোকোয়া বাটার ব্যবহার করা হয়। গর্ভাবস্থায় এবং প্রসবের পরে কোকোয়া বাটার ব্যবহার করলে ভালো কাজ করে (যদিও এটি গবেষণা দ্বারা প্রমাণিত হয়নি)। এটি ত্বককে আর্দ্র হতে সাহায্য করে। গর্ভাবস্থায় গর্ভের শিশুর বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে মায়ের উদরের ত্বক প্রসারিত হয় বলে ফাটা দাগের সৃষ্টি হয়। ত্বক আর্দ্র থাকলে ত্বকের ভাঙ্গন কম হয়। কোকোয়া বাটার ব্যবহার করে স্ট্রেস মার্ক প্রতিরোধ করা যায় এবং দাগ হালকা করা যায়।
অ্যালোভেরা জেল : স্ট্রেস মার্ক দূর করার দ্বিতীয় কার্যকর উপাদানটি হচ্ছে অ্যালোভেরা জেল। এটি ত্বকের পুনর্জন্ম হতে সাহায্য করে এবং ত্বকের স্ট্রেস মার্ক দূর করে। স্ট্রেচ মার্ক দূর করতে কার্যকর ৪ উপায়
নারিকেল তেল : স্ট্রেস মার্কের দাগকে হালকা করতে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয় নারিকেল তেল এবং এটি ত্বককে আর্দ্র হতেও সাহায্য করে।
কাঠ বাদামের তেল : একটি গবেষণা পর্যালোচনার মতে, কাঠ বাদামের তেল শুধু স্ট্রেস মার্কই প্রতিরোধ করেনা বরং এর তীব্রতাও কমায়। গবেষণাটি গর্ভবতী নারীদের উপর করা হয়, কারণ ৯০ শতাংশ গর্ভবতী নারী স্ট্রেস মার্কের সমস্যায় ভোগেন।
আপনার মতামত লিখুন

লাইফস্টাইল বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ