শনিবার,২০শে জানুয়ারি, ২০১৮ ইং,৭ই মাঘ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সময়: সকাল ১১:০৬
লঙ্কানদের উড়িয়ে দিয়েছে টাইগাররা আইএফসি হবিগঞ্জের উদ্যোগে শীতার্ত মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ ফাঁকা মাঠে গোল দিতে ফারিয়ার অনীহা ইসলামী ব্যাংক পরিবারের বার্ষিক প্রীতিমিলনী ও বনভোজন অনুষ্ঠিত বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় ধাপেও পর্যাপ্ত নিরাপত্তা: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী লালপুর উপজেলা প্রেসকাবের দ্বি-বর্ষিক নির্বাচন সম্পন্ন সভাপতি রায়হান, সম্পাদক মোয়াজ্জেম ফুলবাড়ীতে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের ৮২তম জন্মবার্ষিকী পালিত ॥

শেখ হাসিনাকে আ.লীগের আজীবন সভাপতি রাখার দাবি কাউন্সিলরদের

1 year ago , বিভাগ : জাতীয়,

hasina-bbমুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আওয়ামী লীগের আজীবন সভাপতি হিসেবে থাকার দাবি জানাচ্ছেন দলের সাংগঠনিক জেলার নেতারা। এজন্য গঠনতন্ত্র সংশোধন করে বিশেষ বিধান রাখার দাবিও তাদের।

রোববার (২৩ অক্টোবর) আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় সম্মেলনের কাউন্সিল অধিবেশনের বক্তব্যে এ দাবি উত্থাপন করছেন কাউন্সিলর হিসেবে অংশ নেওয়া সারা দেশের বিভিন্ন জেলার সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকরা।

জেলার নেতারা একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয়কেও আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের নতুন কমিটিতে সম্মানজনক পদে রাখার দাবি জানাচ্ছেন।

অধিবেশনে সভাপতিত্ব করছেন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

লালমনিরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মতিউর রহমান দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘আপনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। আমি একটি প্রস্তাব করতে চাই, যতোদিন আপনি বেঁচে থাকবেন, ততোদিন সভাপতির দায়িত্ব পালন করে যাবেন। গঠনতন্ত্র সংশোধন করে বিশেষ একটি বিধানে উল্লেখ করতে হবে, যতোদিন শেখ হাসিনা বেঁচে থাকবেন, ততোদিন সভাপতি থাকবেন’।

পিরোজপুর জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাকিম হাওলাদার বলেন, ‘শেখ হাসিনা যতোদিন বেঁচে থাকবেন, ততোদিন আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে থাকবেন। নেত্রী, আমরা আপনাকে আজীবন সভাপতি দেখতে চাই। আপনি আজীবন সভাপতি থাকবেন’।

এর আগে সকাল ৯টা ৩৮ মিনিটে কাউন্সিল অধিবেশন শুরু হলে সভাপতির সূচনা বক্তব্যে নতুন নেতৃত্ব আনার আহ্বান জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনা। শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমার বয়স সত্তর হয়ে গেছে। আর কতো, নতুন নেতৃত্ব আনতে হবে’।
সারা দেশের কাউন্সিলররা সঙ্গে সঙ্গে সমস্বরে ‘না’, ‘না’ বলে তার এ বক্তব্যের বিরোধিতা করেন এবং শেখ হাসিনাকেই আজীবন মূল নেতৃত্বে থাকতে হবে বলে সাফ জানিয়ে দেন।

সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমেদ কামরান নেত্রীর ওই কথা প্রত্যাহারের আহ্বান জানান তার বক্তব্যে। তিনি আবেগাপ্লুত হয়ে কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘আপনি আমাদের ছেড়ে কোথায় যাবেন? আপনি যতোদিন শারীরিকভাবে সুস্থ থাকবেন, ততোদিন আমাদেরকে নেতৃত্ব দিয়ে যাবেন’।

কিশোরগঞ্জ জেলা কমিটির সভাপতি কামরুল হাসানও শেখ হাসিনার উদ্দেশ্যে বলেন, ‘যতোদিন আপনার কর্মক্ষমতা থাকবে, ততোদিন আপনাকেই আওয়ামী লীগের হাল ধরে থাকতে হবে- এটাই আমাদের দাবি।

চাঁদপুর জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম পাটোয়ারি, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সভাপতি মোসলেম উদ্দিন, গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আজমত উল্লাহ খানসহ অধিকাংশ নেতারাও তাদের বক্তব্যে একই দাবি জানাচ্ছেন।

শনিবার (২২ অক্টোবর) সম্মেলনের প্রথম দিনের দ্বিতীয় পর্বের কাউন্সিল অধিবেশনেও শেখ হাসিনাকে আজীবন সভাপতি রাখার প্রস্তাবটি করেছিলেন তৃণমূলের কাউন্সিলররা।

আপনার মতামত লিখুন

জাতীয় বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ