শুক্রবার,২৭শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং,১৪ই বৈশাখ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: দুপুর ১২:৪৪
উচ্চহারে করারোপ দাবী ‘তামাক চাষ এসডিজি অর্জনের অন্তরায়’ বাংলাদেশের নারী ক্রিকেটাররা যাচ্ছেন দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে! নির্বাচন নিয়ে মোদির সঙ্গে কোনো কথা হয়নি: কাদের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়ন ও ক্ষতিগ্রস্থ ২০ গ্রামের সমন্বয় কমিটির সংবাদ সম্মেলন ॥ লালমনিরহাটে ভ্রাম্যমান আদালতে কাজীর জেল চিরিরবন্দরে কমিউনিটি কিনিকের ১৮তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন শৈলকুপায় শিার্থীদের জীবন পরিকল্পনা বিষয়ক প্রশ্নোত্তর পর্ব

মোদীর কারণে প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ হচ্ছে: মমতা

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: পশুপতি গেট দিয়ে রাজ্যে চিনা অনুপ্রবেশ চলছে৷ এই বিষয়ে প্রত্যক্ষ মদত রয়েছে কেন্দ্রের৷ আজ সোমবার ফের বিস্ফোরক মন্তব্য মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের৷প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর জন্যই প্রতিবেশী দেশগুলির সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ হচ্ছে বলেও এদিন দাবি করেন মুখ্যমন্ত্রী৷

আজ সোমবার রাষ্ট্রপতি নির্বাচন উপলক্ষে বিধানসভায় হাজির হন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷সেখানেই ফের একবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর কড়া সমালোচনা করেন তিনি৷ তিনি বলেন, নেপাল, ভুটান এমনকী বাংলাদেশ৷ সকল প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে নরেন্দ্র মোদীর উগ্র আচরণের জন্য সম্পর্ক খারাপ হচ্ছে৷ সম্প্রতি ভারত চিন সম্পর্ক নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী যে যথেষ্ট উদ্বেগে রয়েছেন তা কেন্দ্রকে বহুবার তিনি জানিয়েছেন বলে জানা যায়৷ চিঠি লেখার পাশাপাশি একাধিকবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের সঙ্গে ফোনে কথাও বলেছেন তিনি৷ এদিন ফের একবার চিন ইস্যু নিয়ে প্রকাশ্যে সরব হন মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি বলেন, ‘পশুপতি গেট দিয়ে চিনা অনুপ্রবেশ চলছে৷ কেন্দ্রের দায়িত্ব সীমান্ত রক্ষা করা৷ দার্জিলিংয়ে চিনা ভাষা শেখানো হচ্ছে৷’ এই বিষয়ে কেন্দ্র কেন কড়া পদক্ষেপ নিচ্ছে না তা নিয়ে এদিন প্রশ্ন তোলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷

বর্তমানে রাজ্যে একের পর এক হিংসার ঘটনায় সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির বিষয়টি প্রশ্নের মুখে৷ এদিন তা নিয়েও কার্যত কেন্দ্রকেই দায়ী করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তৃণমূল নেত্রী এদিন বলেন, বাংলাদেশ থেকে জামাতরা এসে এই রাজ্যে হিংসা ছড়াচ্ছে৷ তারপর ফের বাংলাদেশে পালিয়ে যাচ্ছে৷ বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গেও জামাতদের সম্পর্ক খারাপ বলেও এদিন দাবি করেন মমতা৷ একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর জন্যই তিস্তা সহ একাধিক ইস্যুতে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ হচ্ছে বলেও সরব হন মুখ্যমন্ত্রী৷তিনি আরও বলেন, নেপাল, ভুটান, বাংলাদেশ এমনকী মায়ানমারের সঙ্গেও মোদীর কারণেই সম্পর্ক খারাপ হচ্ছে৷ কেন্দ্রের ভ্রান্তনীতির ফল ভোগ করতে হচ্ছে রাজ্যকে৷

কেন্দ্রের নোট বাতিল নিয়ে প্রথম থেকেই সরব ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ একই সঙ্গে সরব ছিলেন পণ্য ও পরিষেবা কর বা জিএসটি নিয়ে৷ এদিন ফের একবার এই দুই ইস্যুতে নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী৷ প্রশ্ন তুললেন, কালো টাকা উদ্ধারের অজুহাতে যে নোট বাতিল হয়েছিল তাতে কত কালো টাকা উদ্ধার হয়েছে? এখনও বহু সরকারি আমালার বাড়ি থেকে টাকা উদ্ধার হচ্ছে কেন তা নিয়েও এদিন প্রশ্ন তোলেন মমতা৷

আপনার মতামত লিখুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ