বৃহস্পতিবার,১৯শে অক্টোবর, ২০১৭ ইং,৪ঠা কার্তিক, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সময়: দুপুর ২:৫৬

গাইবান্ধায় শেখ রাসেলের জন্মদিন পালিত সাঘাটায় সিএনজি চালককে হত্যা গোবিন্দগঞ্জ সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের উদ্যোগে মা-সমাবেশ অনুষ্ঠিত সুন্দরগঞ্জে ৬ জুয়াড়ির কারাদন্ড পলাশবাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান ও ভাইস-চেয়ারম্যানের পুনরায় দায়িত্ব গ্রহণ পঞ্চগড়ে সড়ক দূর্ঘটনায় ৫ম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু: মহাসড়ক অবরোধ বাগমারায় শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে শ্রীপুর ছাত্রলীগের সভা

বিয়ের পর যে কারণে মোটা হয় মেয়েরা

4_19651

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেক্স: ইউরোপের নয়টি দেশ জুড়ে করা এক পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, অবিবাহিতদের তুলনায় দম্পতিরা সাধারণত স্বাস্থ্যকর খাবার বেশি খেয়ে থাকেন। তবে তাদের উল্লেখযোগ্য হারে ওজন বাড়লেও পরিশ্রমের মাত্রাও কমে। মূলত রুটিনমাফিন স্বাস্থ্যকর খাওয়া একটানা খাওয়ার কারণে বিয়ের পর মেয়েরা ধীরে ধীরে মোটা হতে থাকে।

গবেষকরা দেখেন, বিবাহিত পুরুষরা অবিবাহিতদের তুলনায় অর্গানিক এবং ন্যায্য মূল্যের খাবার বেশি কেনেন।গবেষণার প্রধান লেখক, ইউনিভার্সিটি অফ বাসেলের হেলথ সাইকোলজি বিভাগের সহকারি অধ্যাপক ইয়ুতা মাতা বলেন, ‘দীর্ঘস্থায়ী সম্পর্কে জড়িত পুরুষরা অনেক সচেতনতার সঙ্গে আরও স্বাস্থ্যকরভাবে খাওয়া-দাওয়া করেন।’

তবে তার মানে এই নয় যে তারা সুস্বাস্থ্যের অধিকারী। গবেষণায় দেখা যায়, অবিবাহিতদের তুলনায় বিবাহিত পুরুষরা শারীরিক পরিশ্রম কম করেন।গবেষকরা বৈবাহিক অবস্থা এবং বডি ম্যাস ইনডেক্স (বিএমআই) মধ্যকার সম্পর্ক পর্যবেক্ষণ করেন।উচ্চমাত্রার বিএমআই হতে পারে দীর্ঘস্থায়ী অসুস্থতা যেমন ডায়াবেটিস বা হৃদরোগের কারণ।

গবেষকরা অস্ট্রিয়া, ফ্রান্স, জার্মানি, ইতালি, নেদারল্যান্ডস, পোল্যান্ড, রাশিয়া, স্পেন এবং ব্রিটেনের ১০ হাজার ২২৬ জন উত্তরদাতার তথ্য ‘ক্রস-সেকশনাল’ পদ্ধতিতে পর্যালোচনা করেন।নয়টি দেশের ফলাফলেই দেখা যায়, দম্পতিদের বিএমআই’য়ের মাত্রা অবিবাহিতদের তুলনায় বেশি, নারী-পুরুষ উভয়েরই।বার্লিনের ম্যাক্স প্লাঙ্ক ইন্সিটিটিউট ফর হিউম্যান ডেভেলপমেন্টের রাল্ফ হার্টউইগ বলেন, ‘সামাজিক বিষয়গুলো স্বাস্থ্যের উপর প্রভাব ফেলতে পারে। আর বিয়ে এবং আনুষঙ্গিক পরিবর্তনগুলো শারীরিক পুষ্টি এবং ওজনের সঙ্গে সরাসরি সম্পর্কযুক্ত।’

বিবাহিত দম্পতিদের পাশাপাশি অবিবাহিত দম্পতিদের নিয়েও বাড়তি গবেষণা করেছেন গবেষকরা।দম্পতিদের কাছ থেকে জানা গেছে তারা টিনজাত বা প্যাকেট করা খাবারের চেয়ে আঞ্চলিক ও অপ্রক্রিয়াজাত খাবার বেশি কেনেন।ইয়ুতা মাতা বলেন, ‘বাস্তবে দম্পতিরা সবক্ষেত্রে ততটা স্বাস্থ্যকর জীবনযাপন করেন না, যতটা মনে করা হয়, এমনটাই ইঙ্গিত করে এই গবেষণার ফলাফল।’

আপনার মতামত লিখুন

লাইফস্টাইল বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ