বৃহস্পতিবার,১৭ই জানুয়ারি, ২০১৯ ইং,৪ঠা মাঘ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৪:০৯
মুসলিম উম্মাহ’র ঐক্যে গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রীর এমপিদেরকে তথ্য জানাতে ‘শর্ট ম্যাসেজ সার্ভিস’ চালু হচ্ছে যেসব খাবার ফ্রিজে রাখলেও নষ্ট হয় মাংসের দাম কমাতে বললেন প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী আইফোনে আগ্রহ কমেছে ক্রেতাদের অফিসার ক্যাডেট নেবে বিমানবাহিনী ফুলবাড়ী পৌর ভূমি অফিসের সহকারী কর্মকর্তাকে লাঞ্চিত করায় অপরাধীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ॥

প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় এমসিকিউ’র পরিবর্তে সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন

9 months ago , বিভাগ : শিক্ষা,

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: বহুনির্বাচনী প্রশ্ন (এমসিকিউ) বাদ দিয়ে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় সংক্ষিপ্ত লিখিত প্রশ্ন যুক্ত করা হয়েছে। জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা একাডেমির এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ১০ এপ্রিল জাতীয় কর্মশালায় পরিমার্জিত এই প্রশ্নপত্রের কাঠামো চূড়ান্ত করা হয়েছে।

নতুন এই প্রশ্ন কাঠামোতে দেখা গেছে, প্রাথমিক সমাপনীর প্রতিটি বিষয়ে বহুনির্বাচনী প্রশ্ন বাদ দিয়ে সেখানে সত্য-মিথ্যা, এক কথায় উত্তর, শূণ্যস্থান পূরণ, শব্দ অর্থ লিখন, বাক্য গঠন, বিরাম চিহ্ন লিখন, বাক্য গঠনসহ বিভিন্ন ধরনের সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন জুড়ে দেয়া হয়েছে। নতুন ধারার প্রশ্ন যুক্ত করে এবার থেকে প্রশ্নপত্র তৈরি হবে। এমসিকিউ প্রশ্ন বাদ দেয়া হলেও পরীক্ষার সময় আগের মতো আড়াই ঘণ্টাই থাকবে।

মূলত, প্রশ্ন ফাঁস মহামারীর আকার ধারণ করায় প্রশ্ন পদ্ধতি নিয়েই প্রশ্ন ওঠে। বিষয়টিকে আমলে নিয়ে প্রশ্ন ফাঁস রোধে পঞ্চম শ্রেণির পরীক্ষায় এমসিকিউ তুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

প্রাথমিক সমাপনীতে সৃজনশীল প্রশ্নের হার গত কয়েক বছর ধরেই ধাপে ধাপে বাড়নো হচ্ছিল। ২০১৬ সালে প্রতি বিষয়ে ৬৫ শতাংশ এবং ২০১৭ সালে ৮০ শতাংশ প্রশ্ন ছিল যোগ্যতাভিত্তিক, বাকি প্রশ্ন ছিল সনাতন ধরনের। ২০০৯ সালে সারা দেশে এক সঙ্গে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা শুরুর পর ২০১২ সালে প্রথমবারের মতো ১০ শতাংশ সৃজনশীল প্রশ্ন সংযোজন করা হয়। এরপর ধাপে ধাপে বাড়িয়ে ২০১৩ সালে ২৫ শতাংশ, ২০১৪ সালে ৩৫ শতাংশ এবং ২০১৫ সালে ৫০ শতাংশ সৃজনশীল প্রশ্নে ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের সমাপনী পরীক্ষা হয়। চলতি বছর শতভাগ যোগ্যতাভিত্তিক পদ্ধতিতে পরীক্ষার আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

আপনার মতামত লিখুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ