মঙ্গলবার,১৭ই জানুয়ারি, ২০১৭ ইং,৪ঠা মাঘ, ১৪২৩ বঙ্গাব্দ, সময়: বিকাল ৪:৫২
পার্বতীপুরে রেল ইঞ্জিন থেকে তেল পাচার॥ দুই চালক বরখাস্ত ধোলাইখালে ট্রাকের ধাক্কায় চাচা-ভাতিজা নিহত সিরিয়ায় নিজ নৌ এবং বিমান ঘাঁটিগুলোর উন্নয়ন করবে রাশিয়া সাত খুনের মামলার রায় ন্যায় বিচারের প্রমাণ : ওবায়দুল কাদের সাথীর লাকি সেভেন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত খেলাধুলার চর্চা বাড়াতে হবে: শিক্ষামন্ত্রী ঠাকুরগাঁওয়ে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগের উদ্বোধন

প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছে মুন্সীগঞ্জের মৃৎ শিল্পীরা

img_7071মোঃ জাফর মিয়া :বাঙালি হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দূর্গাপূজা উপলেে মুন্সীগঞ্জে প্রতিটি পূজামন্ডবে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন মৃৎ শিল্পীরা আসছে পূজো বাজবে ঢাক,বাজবে কাসর, জমবে এবার ধুনটি নাচ ,এই ছন্দে জেনো মেতে আছেন প্রতিটি হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা । কাশফোটা শরতের শারদীয় দূর্গোৎসবকে সামনে রেখে মন্দিরগুলোতে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি। প্রতিমা শিল্পীর কল্পনায় দেবী দূর্গার অনিন্দ্যসুন্দর রুপ দিতে সকাল থেকে সন্ধা প্রজন্ত চলছে প্রতিমা তৈরির কাজ। ইতিমধ্যে প্রতিমার কাঠামোর মাটির কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে। শুরু হয়ে গেছে রং ও সাজসজ্জার কাজ। সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসবকে ঘিরে জেলার হিন্দুপাড়া গুলোতে আগাম শারদীয় উৎসবের আমেজ বয়ে চলছে। উচু-নিচুর বিভেদ ভুলে সমাজের সকল স্থরের মানুষকে একত্র করে মহা-মিলন হয় বলে এ পূজাকে বলা হয় সার্বজনীন পূজা।এছাড়া ও শরৎকালে হয় বলে এই পূজাকে বলা হয় শারদীয় উৎসব। তাই দূর্গাপূজাকে সামনে রেখে জেলায় ছয় টি উপজেলার ২৮৩ টি মন্ডপের পূজা উদযাপন কমিটি ব্যস্ত সময় পার করে চলেছে। কোন কোন মন্ডপে প্রতিমা তৈরির পাশাপাশি সাজসজ্জার প্রস্তুতি ও চলছে পুরো দমে ।স্থানীয় কারিগর ছাড়াও বিভিন্ন স্থান থেকে কারিগররা এখানে এসে তৈরি করছে মাটির প্রতিমা। দেবীকে সাজিয়ে তুলছে জেনো এক নতুন রূপে ,প্রতিটি পূজামন্ডপের জন্য তৈরি করা হচ্ছে দূর্গা, শরস্বতী, কার্তিক, গণেশ, অসুর, সিংহ, মহিষ, পেচা, হাঁস, সর্পসহ প্রায় ১২টি প্রতিমা। হিন্দু সম্প্রদায়ের দূর্গতিনাশীনী দূর্গাদেবীকে বরণ করে নিতে মন্ডপে প্রতিমা তৈরির কাজ,ছাড়াও সাজসজ্জার কাজ চলছে ঠিক একই গতিতে ।ঢাক, ঢোল বাদ্যকাররা বাদ্যযন্ত্র ঠিকঠাক করে নিচ্ছে তার পাশাপাশি, প্রতিমা শিল্পীরাও মহাব্যস্ত প্রতিমা তৈরিতে। সেই সাথে ব্যস্ত প্রতিমার রং শিল্পীরা ও মূর্তি গড়া শেষে মূহুর্তে রংতুলির আঁচড়ে ফুটিয়ে তোলতে জেনো দিন রাত নতুন নতুন সপ্ন বুনে চলেছে তারা । দেবীকে মহা আনন্দে বরণ করে নিতে সর্বত্র জেনো আনন্দঘন পরিবেশ বিরাজ করছে। হিন্দু সম্প্রদায়ের শিশু, নারী-পুরুষসহ সব বয়সী মানুষ এ শারদীয় উৎসবকে স্বার্থক করতে প্রহর গুনছে প্রতি মূহুর্তে। সব মিলিয়ে ব্যাপক প্রস্তুতির মধ্যে দিয়ে চলছে প্রতিটি পূজামন্ডপে প্রতিমা তৈরির কাজ।
এই বিষয়ে মুন্সীগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাহেদুল আলম জানান, জেলার প্রতিটি মন্দিরে ইতোমধ্যে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোড়দার করা হয়েছে। প্রতিটি পূজা মন্ডপে পুলিশ এবং আনসার সদস্যদের স্থায়ী মোতায়েনের পাশাপাশি র‌্যাব সদস্যদের টহলের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়াও সাদাপোষাকের আইন- শৃঙ্খলা রাকারী বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা সার্বণিক পূজা মন্ডপগুলোতে নজরদারি বৃদ্ধি করেছেন।এবং পূজা মন্ডপে যাতে কোন প্রকার মাদক দ্রব্য নিয়ে কেউ প্রবেশ করতে না পারে সেই বিষয়েও ল্য রাখা হচ্ছে। সবমিলিয়ে প্রশাসনের প থেকে আইন শৃঙ্খলা রায় সবধরনের সহায়তার আশ্বাস পেয়ে ইতোমধ্যে পুরো জেলাজুড়ে উৎসবের আমেজ ছড়িয়ে পরেছে।
এছাড়া জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি অজয় চক্রবর্তী জানান, আগামী ৭ অক্টোবর ষষ্ঠী পূজার মধ্যদিয়ে দূর্গোৎসব শুরু হয়ে ১১ অক্টোবর প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে ৫ দিনব্যাপী শারদীয় দুর্গা পূজার সমাপ্তি ঘটবে।

আপনার মতামত লিখুন

ঢাকা,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ


%d bloggers like this: