মঙ্গলবার,১৬ই অক্টোবর, ২০১৮ ইং,১লা কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৪:০৯
প্রধানমন্ত্রী সৌদি আরব সফরে যাচ্ছেন আগামীকাল ১ নভেম্বর থেকে জেএসসি পরীক্ষার সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন শ্রমিক’ থেকে ‘গণমাধ্যমকর্মী’ হলেন সাংবাদিকরা ৩০ জনকে নিয়োগ দেবে রানার গ্রুপ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত এখন ০১৩… নম্বরেও গ্রামীণফোন ঘিওরে পাঁচ প্রতিষ্ঠানকে অর্থদণ্ড

পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডাক্তারের অভাবে স্বাস্থ্য সেবা ব্যাহত

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: পার্বতীপুর রেলওয়ে জংশন খ্যাত ও খনিজ সম্পদে সমৃদ্ধ পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লে¬ক্সে ৪ লক্ষাধিক মানুষের চিকিৎসার জন্য রয়েছে মাত্র ৩ জন ডাক্তার। এদের ১ জন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা। তাকে সর্বক্ষনিক প্রশাসনিক কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হয়। অন্য ২ জনকে দিয়ে চলছে চিকিৎসা সেবা। ফলে ডাক্তার সংকটের কারনে উপজেলাবাসী সুচিকিৎসা পাচ্ছেনা। পার্বতীপুর উপজেলার ১টি পৌরসভা ও ১০টি ইউনিয়নের ৪ লক্ষাধিক মানুষের স্বাস্থ্যসেবা প্রদানের জন্য উপজেলার হলদীবাড়ি এলাকায় স্থাপিত ৫০ শয্যা বিশিষ্ট স্বাস্থ্য কমপে¬ক্স হাসপাতালে ৩৪ জন ডাক্তারের পদ থাকলেও বর্তমানে কর্মরত রয়েছে মাত্র ৩  জন। এই ৩ জন ডাক্তারের একজন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকতা। তাকে সার্বক্ষনিক প্রশাসনিক কাজে ব্যস্ত থাকতে হয়। বর্তমানে মাত্র ২ জন ডাক্তার  (মেডিকেল অফিসার) দিয়ে চলছে স্বাস্থ্য কমপে¬ক্সটিতে স্বাস্থ্য সেবা। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপে¬ক্স সূত্রে জানা গেছে, প্রতিদিন গড়ে দেড় থেকে দুই শত  জন রোগী কমপে¬ক্সটির আউটডোরে চিকিৎসা সেবা নিতে আসে। ইনডোরেও সব সময় রোগী থাকে। তারপরও সবসময় খোলা থাকে জর”রি বিভাগ। ডাক্তারের অভাবে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ রয়েছে অপারেশন থিয়োটার। ফলে ছোট খাটো অপারেশনের জন্য বাইরে যেতে হয় রোগীদের। দীর্ঘদিন ধরে অচল হয়ে পড়ে রয়েছে এক্স-রে মেশিন। সে কারনে রোগীদেরকে বাহিরে থেকে এক্স-রে করে নিয়ে আসতে হয়। এতে মানুষের ব্যয় ও ঝামেলা দুটোই বাড়ে। বিভিন্ন বিভাগের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক সহ ৩৪ জন ডাক্তারের পদ থাকলেও ডাক্তারের অভাবে মাত্র ৩ জন ডাক্তার (মেডিকেল অফিসার) ও মেডিকেল এসিসটেন্টদের নিয়ে জোড়া তালি দিয়ে চলছে এই স্বাস্থ্য কমপে¬ক্স এর চিকিৎসা সেবা। তার ফলে এই এলকার মানুষ সু-চিকিৎসা পাচ্ছে না। সু-চিকিৎসার জন্য বাধ্য হয়ে তাদেরকে বাইরে যেতে হচ্ছে। এই স্বাস্থ্য কমপে¬ক্স এ চিকিৎসা নিতে আসা রোগী সেকেন্দার আলী অভিযোগ করে বলেন, আমরা সাধারন গরিব মানুষরা অন্য কোথাও যেতে পারি না বলে এখানে চিকিৎসা নিতে আসি। কিন্তু অপারেশন থিয়েটার, এক্স-রে মেশিন ও ডাক্তারের অভাবে আমরা ভালো চিকিৎসা পাই না। উপজেলা আওয়ামী কৃষকলীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ হামিদুল ইসলাম প্রমানিক বলেন, ডাক্তার সংকটের কারনে একমাত্র সরকারী চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান স্বাস্থ্য কমপে¬ক্সে চিকিৎসা সেবা ব্যহত হচ্ছে। ৪ লক্ষাধিক মানুষ সু-চিকিৎসা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। অনতিবিলম্বে এই কমপ্লেক্সে ডাক্তার সংকট নিরসন করে স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করার দাবী জানাচ্ছি। এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার মোঃ শহিদুজ্জামান বলেন, ডাক্তার সংকট সহ বিভিন্ন সমস্যার ব্যাপারে উদ্বর্তন কতৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।

 

আপনার মতামত লিখুন

রংপুর,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ