সোমবার,২১শে মে, ২০১৮ ইং,৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: সকাল ৯:১২
জাতীয় সংসদের জন্য ৩৩২ কোটি ৫৩ লাখ টাকার প্রাক্কলিত বাজেট অনুমোদন এমপি শওকত চৌধুরীর যত উন্নয়ন কার্যক্রম নতুনদের নিয়োগ দেবে ল্যাবএইড ফার্মা ছয়টি পদে শিক্ষক নিয়োগ দেবে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় চাকরির সুযোগ কেয়ার বাংলাদেশে ঢাবি ছাত্রীকে হয়রানি, বাস আটকে প্রতিবাদ কেন দিনের বেলা রোজা রাখতে হয়?

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৫ দিন ধরে চিকিৎসাধীন

পার্বতীপুরে ৬ বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার

 পার্বতীপুর(দিনাজপুর) সংবাদদাতাঃ পার্বতীপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউপি’র আটরাই গ্রামের ৬ বছরের এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়ে ৫ দিন ধরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তার অবস্থা আশংকাজনক।
মামলা সূত্রে জানা যায়, মোহনা (৬) বাড়ির বাহিরে খেলতেছিল। গত শুক্রবার ১১ মে দুপুর দেড়টার সময় প্রতিবেশী শামীম (২১) ফুসলিয়ে মোহনাকে তার বাড়িতে নিয়ে যায়। শামীমের বাড়িতে কেউ না থাকায় শামীম মোহনাকে তার ঘরে উপযুপরি র্ধষণ করে। মোহনার চিকিৎকারে পথচারী জরিফা (৫০)সহ কয়েকজন এগিয়ে আসে। শামীমের হাত থেকে তাকে জীবনে বাঁচায়। ভ্যান যোগে মোহনাকে রক্তাক্ত অবস্থায় বদরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তি করে।
প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। মোহনার বাবা মোজাহেদুল ইসলাম ওরফে দুলাল ও তার মা ঢাকা শহরে গামের্ন্টসে চাকুরী করে। সে তার দাদা দাদীর নিকট প্রতিপালিত হয়ে আসছে। সে আটরাই সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণীর ছাত্রী। শামীম হল পলাশবাড়ী ইউনিয়নের মধ্য আটরাই গ্রামের নজরুল ইসলাম নজুর ছেলে।
রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দায়িত্বরত চিকিৎসক বলেন, ভালভাবে মোহনার চিকিৎসা চলছে।
পলাশবাড়ী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোফাখখারুল ইসলাম ফারুক সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এরকম একটি ঘটনা শুনেছি।
পার্বতীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাসিবুল হক প্রধান বলেন, অপরাধী বিরুদ্ধে মামলা গ্রহন করা হয়েছে। আসামী গ্রেফতারের চেষ্টা বলছে। এ ব্যাপারে থানায় একটি মামলা হয়েছে। মামলা নং- ২৬।

আপনার মতামত লিখুন

রংপুর,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ