বুধবার,১৯শে ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং,৫ই পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ২:৪৮
বাউয়েটের প্রতিষ্ঠাতা উপাচার্যের বিদায় সংবর্ধনা সারাদেশে ১ হাজার ১৬ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে কাজ করবে সেনাবাহিনী মধ্যপাড়া পাথর খনিতে সেরা খনি শ্রমিক হিসেবে ৫৫ জন পুরস্কৃত আপনাদের সেবক হিসেবে পাশে ছিলাম -এমপি মানিক ভুলভ্রান্তি হলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন: শেখ হাসিনা আওয়ামী লীগের আরো পাঁচ বছর ক্ষমতায় থাকা প্রয়োজন : প্রধানমন্ত্রী

নয় অতিরিক্ত লবণ

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: লবণ শরীরের জন্য অত্যন্ত দরকারি হলেও অতিরিক্ত লবণ কিন্তু স্বাস্থ্যের ওপর দীর্ঘমেয়াদি ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে। লবণকে নীরব ঘাতকও বলা হয়। দেখা গেছে, যারা লবণ কম খায়, তাদের ৮০ শতাংশের উচ্চ রক্তচাপ নেই। তাই প্রয়োজনের চেয়ে বেশি লবণ গ্রহণ ঠিক নয়। পরামর্শ দিয়েছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের হৃদরোগ বিভাগের অধ্যাপক ডা. এস এম মোস্তফা জামান

❏ প্রয়োজনের অতিরিক্ত লবণ গ্রহণ করলে উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, স্ট্রোক, কিডনিরোগ, পক্ষাঘাত, অন্ধত্বসহ নানাবিধ জটিল অসুখ হতে পারে।

❏ হাড়ের ক্যালসিয়াম ক্ষয়ে হাড় পাতলা বা অস্টিওপোরোসিস হতে পারে। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে এই পাতলা হাড়গুলোর ভঙ্গুরতা বৃদ্ধি পায়, যা জোড়া লাগতে অনেক সময় লাগে।

❏ পাকস্থলীর ক্যান্সার, শারীরিক স্থূলতা হতে পারে।

❏ অ্যাজমার উপসর্গগুলো বৃদ্ধি পায়।

❏ ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়।

❏ ধীরে ধীরে স্মৃতিশক্তি কমে যায় বা মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

❏ কখনো হাত ও পায়ে পানি জমে, শরীরে ফোলা ভাব হয়।  সূত্র: কালের কণ্ঠ

আপনার মতামত লিখুন

লাইফস্টাইল বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ