সোমবার,১৭ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং,৩রা পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৮:৩৬
আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহার কাল জনগণ আমাদের ভোট দেবে: শেখ হাসিনা ১০ বছরে দেশের মানুষকে আলোর পথযাত্রী করেছেন শেখ হাসিনা : মতিয়া চৌধুরী ক্রমশ ভাঙছে দূরত্বের দেয়াল অর্থনৈতিক উন্নয়নে বাংলাদেশ এখন রোল মডেল-গণশিক্ষা মন্ত্রী ঝিনাইগাতীতে সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত-১ ফুলবাড়ী সরকারী খাদ্য গুদামে চাল ক্রয়ের উদ্বোধন

নাজিরপুরে নিজ ঘর থেকে শ্রমিকের লাশ উদ্ধার

পিরোজপুর প্রতিনিধি
পিরোজপুরের নাজিরপুরে নিজ ঘর থেকে সিদ্দিকুর রহমান (৫০) নামে এক গাছকাটা শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার কলারদোয়ানিয়া ইউনিয়নের মুনিরাবাদ গ্রামের নিজ বসতঘর থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। পিরোজপুর জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আহমাদ মাঈনুলসহ নাজিরপুর থানার ওসি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ সিদ্দিকের আপন ভাই নজরুল ইসলাম (৪৫) ও পুত্র সোহেল রানা (৩০) কে আটক করেছে।
উপজেলার বৈঠাকাটা তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই অনুপ কুমার মন্ডল এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুজনকে আটকের কথা স্বীকার করে জানান, নিহত সিদ্দিকুর রহমানের প্রথম স্ত্রী খালেদা বেগম দুবছর আগে তাকে তালাক দিয়ে চলে যান। তাদের সংসারে সোহেল রানা (৩০) ও জুয়েল রানা (২৫) নামে দুই ছেলে রয়েছে। প্রথম স্ত্রী চলে যাওয়ার কয়েক মাস পরে সিদ্দিকুর রহমান আসমা নামে এক মেয়েকে বিবাহ করে। বিগত এক বছর আগে নিহত সিদ্দিকের ছোট ছেলে জুয়েল রানা তার সৎ মা আসমাকে নিয়ে পালিয়ে যায় এবং বড় ছেলে সোহেল রানা বিয়ে করে স্ত্রীকে নিয়ে চাচা নজরুল ইসলামের ঘরে বসবাস করে আসছে। নিহত সিদ্দিকুর রহমান একাই তার বসতঘরে বসবাস করতো। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে কোন কিছু দিয়ে মাথা ও চোখে আঘাতসহ শ্বাসরোধ করে তাকে হত্যা করা হয়েছে।
স্থানীয় বাসিন্দা আব্দুল আউয়াল জানান, নিহত সিদ্দিকুর রহমানের সাথে তার ছেলে ও ভাইদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি-জমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছে।
নিহত সিদ্দিকুর রহমানের সহকর্মী মানিক জানান, তারা দুজনের একত্রে গাছকাটার কাজ করেন। বুধবারেও তারা কাজ করেছেন। বৃহস্পতিবার সকালে কাজে যাওয়ার জন্য মানিক নিহত সিদ্দিকের বাড়িতে তাকে ডাকতে যান। ওই বাড়িতে গিয়ে সিদ্দিকের বসতঘরের সামনের দরজা খোঁলা পেয়ে ঘরে ঢুকে ঘরের মাঝখানের কক্ষে খাটে মাথায় রক্তাক্ত অবস্থায় সিদ্দিকের লাশ দেখে চিৎকার করলে আশ-পাশের লোকজন এসে পুলিশকে খবর দেয়।
নাজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) একেএম সুলতান মাহমুদ জানান, এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা রুজুর প্রক্রিয়াধীন । ঘটনার সংবাদ পেয়ে তাৎক্ষনিক পিরোজপুর জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আহমাদ মাঈনুলসহ তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুত করা হয়েছে। ময়না তদন্তের জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। হত্যার কারণ উদঘাটনসহ খুনীদের সনাক্ত পূর্বক গ্রেফতারের জন্য পুলিশী তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন

ঢাকা,সারাদেশ,সিলেট বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ