বুধবার-২৪শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং-১১ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, সময়: দুপুর ২:২১
চন্দনারানীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন পূঁজা উৎযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক দিলিপ চন্দ্র সাহা গাইবান্ধায় মন্দির ভিত্তিক প্রাক-প্রাথমিকের শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ গাইবান্ধায় অটোবাইকের ধাক্কায় আহত যুবকের মৃত্যু কামারপাড়া ইউনিয়নের নুরপুর গ্রামে বসতবাড়ি ও ফসলি জমি ঘেঁষে তিন ফসলি জমিতে ইটভাটা স্থাপন গ্রামীণ জনপদে সুইমিং পুল, রিসোর্ট- বাঘ, হরিন, হাতি, পাখির স্ট্যাচুসহ বিভিন্ন রাইড ও খেলনা বিনোদন প্রেমীদের জন্য ফারিহা গার্ডেন মনির হোসেন.বরিশাল ॥ দক্ষিণাঞ্চলে সড়ক পথে প্রথম সম্মুখ যুদ্ধে শহীদ হন চার মুক্তিযোদ্ধা বরিশালে বোরো ধানের বাম্পার ফলনেও হাসি নেই কৃষকের

টমেটো’র যত উপকার

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: পাকা-টমেটো রান্নার পরে পুষ্টিগুণে বৃদ্ধি পায়। পাকা-টমেটোতে হাড় ও দাঁত গঠনকারী ক্যালসিয়াম পাওয়া যায়। বাংলাদেশ গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের খাদ্য ও পুষ্টিবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান ফারাহ মাসুদা বলেন, ‘টমেটোকে মৌসুমি ফল বা সবজি যে যাই বলুক না কেনো এর গুণাগুণ নিয়ে কারো দ্বিমত থাকার কথা না। রয়েছে অনেক পুষ্টিগুণ।’ তিনি আরও বলেন, ‘টমেটো পেকে লাল হওয়ার সঙ্গে এর পুষ্টিগুণ আরও বৃদ্ধি পায়।’

এই টাটকা ফলের প্রধান অংশ পানি। এর প্রায় ৮০ থেকে ৯৫ শতাংশ পানি। ফলে প্রোটিন ও কার্বোহাইড্রেট তুলনামূলক কম থাকে। দ্রবণীয় শর্করা ও প্রোটিন বাদে ফলের পুষ্টিমান মূলত খনিজ ও ভিটামিন। এইসবের জন্য ফলকে দেহ রক্ষাকারী খাদ্য বলা হয়।

টমেটোর পুষ্টিগুণ সম্পর্কে ফারাহ মাসুদা জানান, ‘প্রতি ১০০ গ্রাম টমেটোতে রয়েছে ৩৫১ মাইক্রো গ্রাম ক্যারোটিন। ক্যারোটিন মানব দেহে ভিটামিন এ’র কাজ করে। অর্থাৎ দৃষ্টিশক্তি প্রখর রাখে ও রেটিনা সুস্থ রাখে।’

পাকা-টমেটোতে আছে ভিটামিন সি। যা দাঁত ও হাড়ের সুস্থতা বজায় রাখে। প্রতি ১০০ গ্রাম টমেটোতে ২৭ মি.গ্রা ভিটামিন সি থাকে। প্রতি ১০০ গ্রাম পাকা-টমেটোতে ০.১৩ মি.গ্রা থায়ামিন থাকে। থায়ামিন পরোক্ষভাবে স্নায়ুতন্ত্র, হৃদপিণ্ড ও পরিপাকতন্ত্রের সুস্থতা রক্ষা করে।

প্রতি ১০০ গ্রাম পাকা-টমেটোতে ০.০৬ মি.গ্রা রিবোফ্লেভিন পাওয়া যায়। এটি বিভিন্ন গ্রন্থি ও কলা- ত্বক, চোখ, স্নায়ু ইত্যাদির সুস্থতা রক্ষা করে। টমেটোতে সামান্য পরিমাণে লৌহ পাওয়া যায়। প্রতি ১০০ গ্রাম পাকা-টমেটোতে ০.৪০ মি.গ্রা লৌহ থাকে।

সাধারণত প্রতি ১০০ গ্রাম পাকা-টমেটোতে ৪৮ মি.গ্রা ক্যালসিয়াম থাকে। ফসফরাস দেহের কোষকলার সুস্থতা রক্ষা করে। প্রতি ১০০ গ্রাম টমেটোতে ২০ মি.গ্রা ফসফরাস পাওয়া যায়।

উপকারিতা

১) টমেটোতে প্রচুর পরিমানে মিনারেল থাকায়, তা আমাদের শরীরের রক্তচাপ সঠিক মাত্রায় রাখে এবং কোলেস্টেরলের মাত্রা সঠিক রাখে।

২) টমেটো দাঁত এবং হাড়ের জন্য খুবই উপকারী। টমেটোতে থাকা ক্যালসিয়াম হাড়ের জোড় বাড়াতে এবং হাড়ের গঠন সঠিক রাখতে সাহায্য করে। এছাড়া দাঁতকে সুস্থ রাখতেও এটি সমান উপকারী।
৩) টমেটোতে প্রচুর পরিমানে ভিটামিন এ থাকায় তা আমাদের শরীরকে বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ করতে সাহায্য করে। বিশেষ করে ইনফ্লুয়েঞ্জা এবং ঠান্ডা লাগার হাত থেকে আমাদের শরীরকে রক্ষা করে।

৪) নিয়মিত টমেটো খেলে আমাদের চোখ খুবই ভালো থাকে। কারণ টমেটোতে যে পরিমান ভিটামিন এ থাকে, তা দৃষ্টিশক্তি ভালো রাখার জন্য খুবই প্রয়োজনীয়। ভিটামিন এ-র অভাবেই দৃষ্টিশক্তিহীনতা এবং রাতকানা রোগ দেখা দেয়। টমেটোর দানা এই রোগ থেকে মুক্তি এবং চোখকে সুস্থ রাখতে খুবই সাহায্য করে।

আপনার মতামত লিখুন

লাইফস্টাইল বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ