মঙ্গলবার,২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং,৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ৪:০০
নির্বাচন সময়মতো অনুষ্ঠিত হবে: প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলনের আদ্যোপান্ত (ভিডিও) প্রশ্নফাঁসে কিছু করার নেই, প্রয়োজনে এমসিকিউ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী এবার থেকে প্রাথমিক সমাপনীতে শতভাগ সৃজনশীল প্রশ্ন সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী ঠাকুরগাঁওয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১ আহত ৩ ‘নির্বাচন সুষ্ঠু করতে আনসার বাহিনীকে সজাগ থাকতে হবে’

চুক্তি লংঘন করে পার্বতীপুরে মধ্যপাড়া খনির কাজ বন্ধ করে দিয়েছে ঠিকাদার জিটিসি

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : পার্বতীপুরে মধ্যপাড়া খনির মহাব্যবস্থাপক (অপারেশন) অপসারনের দাবিতে গতকাল শনিবার সকাল থেকে সবধরণের কাজ বন্ধ করে দিয়েছে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জিটিসি। যা ঠিকাদারের সাথে সম্পাদিত চুক্তির সরাসরি লংঘন বলে জানিয়েছে খনি কর্তৃপক্ষ।
খনি কর্তৃপক্ষ বলছে, জিটিসি ২০১৪ সালে খনির উৎপাদন, ব্যবস্থাপনা ও পরিচালনার দায়িত্ব নেয়। সেসময় খনি বাস্তবায়নকারী প্রতিষ্ঠান নামনাম কর্তৃক প্রস্তুতকৃত খনির উন্নয়ন ও উৎপাদনার ব্যবস্থাপনার একটি ডিজাইন জিটিসিকে সরবরাহ করা হয়। চুক্তি অনুযায়ী ওই ডিজাইন বা খনি কর্তৃপক্ষের অনুমোদিত পরিবর্তিত ডিজাইনে খনি উন্নয়ন করার কথা। কিন্তু খনি কর্তৃপক্ষের কোন অনুমোদন ও মতামত ছাড়া ডিজাইন পরিবর্তন ও পরিবর্ধন করে জিটিসি খনি উন্নয়ন কাজ শুরু করে যাচ্ছিল। এতে করে খনির মহাব্যবস্থাপক (অপারেশন) ও প্রকল্প পরিচালক (ইঞ্জিনিয়ার টু কন্ট্রাক) মীর আবদুল হান্নানের সাথে জিটিসি’র মতবিরোধ দেখা দেয়। জিটিসি বেশ কিছুদিন থেকে মীর আবদুল হান্নানকে ইঞ্জিনিয়ার টু কন্ট্রাক এর দায়িত্ব থেকে অপসারনের দাবি জানিয়ে আসছিল। এরই জের ধরে জিটিসি কর্মকর্তা-কর্মচারী সহ প্রায় ৮শ খনি শ্রমিককে অনির্দিষ্টকালের ছুটিতে পাঠিয়ে গতকাল সকালে খনি গেটে নোটিশ টাঙ্গিয়ে দিয়ে সবধরনের কাজ বন্ধ করে দেয়।
মধ্যপাড়া গ্রানাইট মাইনিং কোম্পানীর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাহমুদ খান জানান- জিটিসি একজন ঠিকাদার। তারা কোন অবস্থাতেই কাজ বন্ধ করতে পারে না। এটা জিটিসি’র সাথে খনি কর্তৃপক্ষের সম্পদিত চুক্তির সরাসরি লংঘন।
উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ২ সেপ্টেম্বর মধ্যপাড়া খনির উৎপাদন, রনাবেণ ও পরিচালন ঠিকাদার হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয় বেলারুশের জেএসসি ট্রেস্ট সকটোস্ট্রয় ও দেশীয় প্রতিষ্টান জার্মানিয়া করপোরেশন লিমিটেড নিয়ে গঠিত জার্মানিয়া ট্রেস্ট কনসোর্টিয়ামকে (জিটিসি)। জিটিসি ২০১৪ সালের ২০ ফেব্রুয়ারী দায়িত্ব নেয় এবং ২৪ ফেব্রুয়ারী পাথর উৎপাদন শুরু করে। জিটিসি ১৭১.৮৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের বিনিময়ে ৬ বছরে ৯২ লাখ (৯.২ মিলিয়ন টন) টন পাথর উত্তোলন করে দিবে।

আপনার মতামত লিখুন

রংপুর,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ