মঙ্গলবার,২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং,১১ই আশ্বিন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ১২:৫৩

চিরিরবন্দরের সার্জেন্ট আলতাফের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির উৎপাদন সাময়িক বন্ধ শৈলকুপায় মোবাইল চার্জার বিস্ফোরনে গৃহবধূ মৃত্যু শৈলকুপার গড়াই নদীতে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত চোট কাটিয়ে নেটে ফিরেছেন তামিম কলাপাড়ায় ১১ রাখাইন পল্লীর বাসিন্দাদের নিয়ে কমিউনিটি পুলিশিং সভা।। চিরিরবন্দরে কৃষি বিভাগের উদ্যোগে বিভিন্ন গ্রামে চলছে তাল বীজ রোপন কর্মসূচি

‘গণতন্ত্র-মানবাধিকারের অগ্রগতি চায় যুক্তরাষ্ট্র’

kerry_30995মুক্তিনিউজ24.কম ডেক্স: মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের এক প্রেস ব্রিফিংয়ে বাংলাদেশের কাছে প্রত্যাশার বিষয়ে পরিষ্কার করেছে যুক্তরাষ্ট্র। পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরির বাংলাদেশ সফরের সময় তিনি এ বিষয়ে পরিষ্কার কথা বলেছেন। বাংলাদেশের কাছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রত্যাশা গণতন্ত্র ও মানবাধিকারের অগ্রগতি অব্যাহত রাখা। তা জোরোলো করা। এখনকার চেয়ে তার আরও উন্নত অবস্থা। যুক্তরাষ্ট্রের প্রত্যাশা, এ অগ্রগতি আরও গাঢ় হবে এবং তা বৃদ্ধি পাবে। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এসব কথা বলেছেন মুখপাত্র জন কিরবি। গত ৩০ আগস্ট এ ব্রিফিংয়ে একজন সাংবাদিক তার কাছে বাংলাদেশ ইস্যুতে প্রশ্ন করেন। তিনি জানতে চান মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরির বাংলাদেশ সফর নিয়ে। তিনি প্রশ্ন করেন, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইসহ অনেক ক্ষেত্রে এখনও মার্কিন সাহায্য প্রয়োজন বাংলাদেশের। এর প্রেক্ষিতে দু’দেশের মধ্যে কি বড় ধরনের কোন আলোচনা বা ঘোষণা এসেছে?
জবাবে জন কিরবি বলেন, আমি আপনাকে বলবো, দ্বিপক্ষীয় ওই বৈঠক নিয়ে ডেপুটি মুখপাত্র মার্ক টোনারে বিবৃতি দিয়েছেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী সংবাদ সম্মেলন করেছেন। এগুলোর প্রতিলিপি আপনাকে পড়ে দেখতে বলবো। তাতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বাংলাদেশ সফর সম্পর্কে বলা আছে। তবু আমি বলবো, তারা সন্ত্রাস বিরোধী লড়াই নিয়ে কথা বলেছেন। জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে কথা বলেছেন। গণতন্ত্র ও মানবাধিকারে বাংলাদেশের অগ্রগতি নিয়ে কথা বলেছেন। আমাদের প্রত্যাশা সম্পর্কে সুনির্দিষ্টভাবে পরিষ্কার করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তাতে ছিল বিস্তৃত বিষয়।

আপনার মতামত লিখুন

জাতীয় বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ