সোমবার,২৪শে জুলাই, ২০১৭ ইং,৯ই শ্রাবণ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সময়: রাত ১২:৪৬

জলঢাকায় প্রাথমিক শিক্ষা পরিবারের কর্মকর্তা, কর্মচারী ও শিক্ষকগণের বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালন পার্বতীপুরে ২০৭ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বৃক্ষ রোপন দায়িত্ব পালনে উদ্ভাবনী শক্তি কাজে লাগাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী ঝিনাইগাতীতে ১১দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে শিক্ষক-কর্মচারী ফ্রন্টের সমাবেধ ও মিছিল চিরিরবন্দরেজাতীয়পাবলিকসার্ভিসদিবসউদযাপন লালপুরে জাতীয়করণের দাবিতে বেসরকারি শিক-কর্মচারীদের মানববন্ধন সেন্সরে যাচ্ছে ‘ফিফটি ফিফটি লাভ’

আগামীকাল প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন

pm-2মুক্তিনিউজ24.কম ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর কানাডা এবং যুক্তরাষ্ট্রের সাম্প্রতিক সফর নিয়ে আগামীকাল রবিবার এক সংবাদ সম্মেলন করবেন। আজ শনিবার প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, রবিবার ৪টায় প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এর আগেও বিভিন্ন সময় বিদেশ সফরের পর সংবাদ সম্মেলনে মুখোমুখি হয়েছেন তিনি। সম্প্রতি তার বিদেশ সফরের শুরুতে কানাডায় গ্লোবাল ফান্ড সম্মেলন এবং যুক্তরাষ্ট্রে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দিতে ঈদুল আজহার পরদিন ঢাকা ছাড়েন শেখ হাসিনা। ১৭ দিনের সফর শেষে শুক্রবার বিকালে তিনি দেশে ফিরেছেন। এ সফরে ‘প্ল্যানেট ৫০-৫০ চ্যাম্পিয়ন’ ও ‘এজেন্ট অব চেঞ্জ এওয়ার্ড’ পুরস্কার পেয়েছেন বাংলাদেশের সরকারপ্রধান।
কানাডার পথে গত ১৪ সেপ্টেম্বর লন্ডনে একদিন অবস্থানের পর শেখ হাসিনা মন্ট্রিলে ‘ফিফথ রিপ্লেসমেন্ট কনফারেন্স অব দ্য গ্লোবালফান্ড (জিএফ)’-এ যোগ দেন। ১৬ সেপ্টেম্বর মন্ট্রিয়ালের হায়াত রিজেন্সিতে এ সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার পর তিনি কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর দেওয়া নৈশভোজে অংশ নেন। সম্মেলনের সমাপনী অধিবেশনের পর কানাডার প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন তিনি। কানাডা সফর শেষে তিনি ১৮ সেপ্টেম্বর দুপুরে এয়ার কানাডার একটি ফ্লাইটে নিউ ইয়র্ক পৌছান।
১৯ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের সদরদপ্তরে উদ্বাস্তু ও অভিবাসনের উপর সাধারণ পরিষদের উচ্চ পযার্য়ের প্ল্যানারি বৈঠকে ভাষণ দেন তিনি। সেদিন মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী অং সাং সু চির সঙ্গে তিনি দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন। তিনি জাতিসংঘে ‘গ্লোবাল কমপেক্ট ফর সেফ’ ‘রেগুলার এন্ড অর্ডালি মাইগ্রেশন: টুওয়ার্ডস রিয়ালাইজিং দ্য ২০৩০ এজেন্ডা ফরসাসটেইনেবল ডেভেলপমেন্ট অ্যান্ড অ্যাচিভিং ফুল রেসপেক্ট ফর দ্য হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড মাইগ্র্যান্টস’ শীর্ষক গোলটেবিলে কো-চেয়ারের দায়িত্ব পালন করেন।
২০ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনের সাধারণ আলোচনার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন। পরে তিনি জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে আয়োজিত কাউন্টার টেররিজমের উপর এশিয়ান লিডার্স ফোরামের বৈঠকে অংশ নেন। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা আয়োজিত উদ্বাস্তু বিষয়ক একটি বৈঠকও যোগ দেন শেখ হাসিনা।
বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর ২২ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনের সাধারণ আলোচনায় বক্তব্য রাখেন। পরে নিউ ইয়র্কে হোটেল গ্র্যান্ড হায়াতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি। ওই দিনই ভার্জিনিয়ার উদ্দেশে নিউ ইয়র্ক ছাড়েন। সফরের সর্বশেষ কর্মসূচিতে গত বুধবার সেখানে বাংলাদেশিদের দেয়া একটি সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি যোগ দেন। অবশ্য গত ২৬ সেপ্টেম্বর দেশে ফেরার কথা থাকলেও পরিবারের সদস্যদের সাথে কিছু সময় কাটানোর জন্য তা পিছিয়ে নিয়ে শুক্রবার তিনি দেশে ফিরেছেন। এ সময় বিমানবন্দর থেকে গণভবন পর্যন্ত রাস্তার দুপাশে দাঁড়িয়ে সর্বস্তরের লাখো জনতা তাঁকে অভ্যর্থনা জানান।
দীর্গ এ সফর শেষে দেশে ফেরার পর জনতার অভিনন্দন ও ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। অভ্যর্থনা জানাতে দীর্ঘ ১৪ কিলোমিটার পথজুড়ে জনতার ঢল নামে। জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনে যোগদান শেষে এমিরেটস এয়ার লাইন্সের ফ্লাইট ইকে-৫৮৬ শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা ৫০ মিনিটে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে। রাত সাড়ে ৭টার দিকে তিনি গণভবনে পৌঁছান। এই পথে রাস্তার দুপাশে দাঁড়িয়ে পতাকা উড়িয়ে, ফুল ছিটিয়ে, হাত নেড়ে ও মুহুর্মুহু স্লোগানে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানান হাজার হাজার নেতা-কর্মী। এ সময়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গাড়িতে বসে হাত নেড়ে উপস্থিত জনতার অভিনন্দনের জবাব দেন। বিমানবন্দর থেকে গণভবনে পৌঁছতে শেখ হাসিনার সময় লাগে প্রায় ৩০ মিনিট।

আপনার মতামত লিখুন

রাজশাহী বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ